Cooking

ক্যাপুচিনোর আদ্যোপান্ত

সকাল কিংবা বিকালে এক কাপ কফি ছাড়া চলেই না আজকাল। তিতকুটে স্বাদের এ পানীয় বেশ নীরবেই বাঙাল মুলুকে জায়গা করে নিয়েছে।

বাঙালির কফিপ্রীতি কিন্তু গরম পানিতে ইনস্ট্যান্ট কফি গুলিয়ে খাওয়ার মাঝে 
আটকে নেই আর। কফি হাউজগুলো ইতোমধ্যেই নানান স্বাদের নানান ঢং এর কফির সাথে 
পরিচয় করিয়ে দিয়েছে।

Cooking

দই ফুচকার মজাদার রেসিপি

বাসার সবার জন্যই কম বেশী বিকেলে নাস্তা তৈরি করা লাগে। প্রতিদিন নতুন 
নতুন আইটেম বানানো কম ঝক্কি নয়, তারপরেও মাঝেমধ্যে মুখরোচক, চোখ জুড়ানো 
কিছু সবার সামনে পরিবেশন করে চমকে দিতে বেশ লাগে! তেমনই এক মজার স্ন্যাক্স 
দই ফুচকা। দোকানে আড়াইশ-তিনশ টাকা খরচ না করে এখন ঘরেই বানিয়ে ফেলতে পারবেন
 স্বাস্থ্য সম্মত এই মজার খাবারটি।

Cooking

আনারস ইলিশ

এটি মূলত আমার শাশুড়ির রেসিপি। খুব সহজ এই মজার খাবার টি একদম তার 
স্টাইলে করা। আমি রান্নাটা একটুও মডিফাই করার ট্রাই করি না কখনো। অাম‍ার এই
 পছন্দের রান্নাটি শেয়ার করছি আজ আপনাদের সাথে..

Cooking

বীফ হাড়ি কাবাব

বছর ঘুরে চলে এসেছে কুরবানীর ঈদ। বছরের এই সময়ে মাংসের আধিক্য থাকার 
কারণে আমরা সবাই কম বেশি চেষ্টা করি টুকটাক বিভিন্ন রেসিপিতে মাংসা রান্না 
করার। আর বাসায় মেহমানদের আপ্যায়নে নতুন কিছু যোগ করতে আমরা সবাই চাই। 
তেমনি একটি রেসিপি হলো বীফ হাড়ি কাবাব। যারা বীফ খেতে পছন্দ করে তাদের কাছে
 এই হাড়ি কাবাব খুবই প্রিয় একটা নাম। আর এই বীফ হাড়ি কাবাব শুধু পোলাও দিয়ে
 নয় বরং ভাত, পরোটা বা রুটি দিয়েও অনেক মজা লাগে।


Cooking

সহজ শাহী বিফ ভুনা

ফ্রিজ ভরা গরুর মাংস কিন্তু রান্না সেই গৎবাঁধা? এই ঈদে নতুন কিন্তু সহজ
 কিছু ট্রাই করা যাক তবে। এ শাহী বিফ ভুনা তৈরি করতে যেমন সহজ, খেতে ততটাই 
সুস্বাদু। চলুন দেখে নেই কি কি লাগবে।

Cooking

ভীনদেশী বীফ স্টেকে বাঙালিয়ানা

কালা ভুনা, রেজালা, মেজবানি গোশতের দেশে হঠাৎ করেই যেন বীফ স্টেকের 
আবির্ভাব! আজকাল শুধু রেস্তোরাঁতে নয়, বাড়িতেও মহাসমারোহে তৈরি হচ্ছে বীফ 
স্টেক।

“যদ্দেশে যদাচার” বলে একটা কথা আছে। চাইনিজ খাবারকে যেমন আমরা আপন করে 
নিজেদের মত বানিয়ে নিয়েছি, বীফ স্টেকও এদেশে এসে ধোপদুরস্ত লাটসাহেব হয়ে 
থাকতে পারেনি।

Cooking

খাসীর লেগ রোস্ট আস্ত- ফ্রাইডে স্পেশাল

অনেক উপকরন আর একটু সময় সাপেক্ষ্য কিন্তু অত্যন্ত মজাদার একটি শাহী 
খাবার এই খাসীর লেগ রোস্ট। ব‍ানানোটা আসলেই সোজা। খাসীর রান টি ভালো করে 
ধুয়ে পানি ঝরিয়ে নিন, তোয়ালে বা পেপার টাওয়েল দিয়ে ভালো ভাবে চেপে চেপে 
একদম শুকনো করে মুছে ফেলুন। এরপরে ধারালো ছুরি দিয়ে খারা ভাবে ধরে পুরো রান
 টায় বেশ গভীর করে একটু কেটে কেটে নিন। এতে মশলা খুব ভালো ভাবে ঢুকবে।